শিরোনাম :
প্রচ্ছদ / অন্যান্য / ইসলামী অর্থনীতি

ইসলামী অর্থনীতি

ঘুষ দিয়ে চাকুরী নেওয়া বৈধ কি?

ঘুষ দিয়ে চাকুরী দেওয়া নেওয়া বৈধ নয়। চাকুরী দিতে হবে পরীক্ষা বিবেচনার মাধ্যমে যোগ্যতম ব্যক্তিকে। যোগ্যতায় সমান হলে লটারির মাধ্যমে নিতে হবে। ঘুষ খেয়ে কাউকে চাকুরী দেওয়া বা নেওয়া এবং যোগ্য লোকের অধিকার নষ্ট করা বৈধ নয়। ‘আল্লাহর রাসুল (সঃ) ঘুষখোর, ঘুষ দাতা (উভয়কেই) অভিশাপ করেছেন।’ (আবু দাউদ ৩৫৮০, তিরমিজি ...

Read More »

আমি এক সরকারী প্রতিষ্ঠানের ম্যানেজার। আমার নেতৃত্বে বহু লোক কাজ করে। আমার ব্যক্তিগত প্রয়োজনে তাঁদের কাউকে কি কোন কাজে লাগাতে পারি?

ডিউটির সময় অবশ্যই না। ছুটির সময় নিজের পয়সা খরচ করে কাজে লাগাতে পারেন। (সাফা)

Read More »

যে কর্মচারী কাজে ফাঁকি দেয়, ঠিকমতো ডিউটি পালন করে না, তার বেতন কি হালাল?

যে কর্মচারী কাজে ফাঁকি দেয়, ঠিকমতো ডিউটি পালন করে না, তার বেতন পুরো হালাল নয়। ফাঁকি অনুযায়ী হারামের পরিমাণ কম বেশি হবে। (ইবনে বাজ)

Read More »

ডিউটির ফিক্সড টাইম আট ঘণ্টা। শুরুতে ১০/১৫ মিনিট দেরি করে এলে এবং শেষে ১০/১৫ মিনিট আগে বেরিয়ে গেলে কোন ক্ষতি হবে কি?

এ ক্ষতির কথা ম্যানেজারের কাছে বলুন। সে চাইলে দেরিতে আসা ও আগে বেরিয়ে যাওয়ার অনুমতি দিতে পারে। অনুমতি না দিলে ডিউটির বাঁধা সময় চুরি করা বৈধ নয়। (ইবনে উসাইমিন)

Read More »

আমি এক কোম্পানিতে চাকরি করি। আমার ব্যক্তিগত কাজে এক জায়গায় গেলে সেখানে আমার গাড়ি এক্সিডেন্ট হয়।….

আমি এক কোম্পানিতে চাকরি করি। আমার ব্যক্তিগত কাজে এক জায়গায় গেলে সেখানে আমার গাড়ি এক্সিডেন্ট হয়। চিকিৎসা ও গাড়ির খরচ অনেক বেশি হবে বুঝে কোম্পানির কাজে গিয়ে এক্সিডেন্ট হয়েছে বলে চালিয়ে দিই। কোম্পানি আমার সমস্ত খরচ বহন করে। কিন্তু বর্তমানে আমার বিবেক আমাকে কামড় দিচ্ছে। সে কাজ কি আমার ঠিক ...

Read More »

অসুস্থ হলে আমি অফিস থেকে দশ দিনের ছুটি নিয়েছিলাম। কিন্তু পাঁচ দিনের মাথায় আমার অসুখ সেরে যায়। বাকি ছুটি ভোগ করার অধিকার কি আমার ছিল?

আপনার উচিৎ ছিল অসুখ সেরে যাবার পর অফিসে হাজির হওয়া এবং ম্যানেজারের কাছে সে কথা জানানো। সে অনুমতি দিলে আপনি বাকি ছুটি ভোগ করতেন। না দিলে কাজে যোগ দিতেন। (ইবনে উসাইমিন)

Read More »

আমি গরিব মানুষ। নাপিতের কাজ করে পেত চালাই। কিন্তু কেউ কেউ বলছে, ‘দাড়ি চেঁছে পয়সা কামানো হালাল নয়।’ এ কথা কি ঠিক ?

জী হ্যাঁ, এ কথা ঠিক। কারণ, দাড়ি চাঁছা হারাম। আর তা চেঁছে দিয়ে পয়সা নেওয়াও হারাম। মহান আল্লাহ বলেছেন, “সৎ কাজ ও আত্ন সংযমে তোমরা পরস্পর সহযোগিতা কর এবং পাপ ও সীমালঙ্ঘনের কাজে একে অন্যকে সাহায্য করো না। আর আল্লাহকে ভয় কর। নিশ্চয় আল্লাহ শাস্তিদানে অতি কঠোর।” (মাহিদাহঃ ২)

Read More »

আমি টেলিফোন সেন্ট্রালে কাজ করি। অনেক সময় আমার ব্যক্তিগত প্রয়োজনে সেই ফোন ব্যাবহার করি। কখনো কখনো আত্মীয় বন্ধুকে কল ট্রান্সফার করি। কোম্পানি আদৌ টের পায় না। এটা কি খেয়ানত হবে?

কোম্পানির অনুমতি না থাকলে অবশ্যই খেয়ানত হবে। (ইবনে বাজ) প্রসঙ্গতঃ উল্লেখ্য যে, আপনি যে অফিসেই চাকরি করুন, সেই অফিসের জিনিস ব্যবহারের আম অনুমতি মালিক বা ম্যানেজারের নিকট থেকে নিয়ে রাখুন। নচেৎ অফিসের কাগজ, কলম, ফ্যাক্স, জেরক্স মেশিন, নেট, কম্পিউটার, গাড়ি ইত্যাদি ব্যক্তিগত কাজে ব্যবহার করা খেয়ানত হবে।

Read More »

আমি বাসের কন্ডাক্টরের চাকুরী করি। সেই বাসে বাড়ির কোন লোক বা বন্ধু চড়লে তাঁদের নিকট থেকে ভারা চাইতে লজ্জাবোধ করি। তারা ভাড়া দিতে চাইলেও সৌজন্যের খাতিরে না নিয়ে বিনা ভাড়াতে তাঁদের গন্তব্য স্থলে পৌঁছে দিই। এটা কি আমার মালিকের কাজে খেয়ানত গণ্য হবে?

অবশ্যই আপনার খেয়ানত হবে। তবে আপনি দুটির একটি করতে পারেন। নিজের পকেট থেকে সেই ভাড়া দিয়ে পুজিয়ে দিতে পারেন অথবা বাস মালিকের নিকট অনুমতি নিতে পারেন।

Read More »